গণভবনে নির্বাচনী প্রচারণা নয় : ইসি রফিকুল

গণভবনে নির্বাচনী প্রচারণা নয় : ইসি রফিকুল

ঢাকা, ৩০ নভেম্বর (জাস্ট নিউজ) : প্রধানমন্ত্রীর বাসভবন গণভবনে নির্বাচনী প্রচারণা চালানো নির্বাচনি আচরণবিধির লঙ্ঘন উল্লেখ করেছে ইসি। এই ভবন থেকে এ ধরনের কার্যক্রম চালানোর প্রমাণ পেলে আইন অনুযায়ী ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলেও জানিয়ে দিয়েছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)।

রাজধানীর আগারগাঁওয়ে নির্বাচন কমিশন ভবনে শুক্রবার সাংবাদিকদের সাথে আলাপকালে এসব কথা বলেন নির্বাচন কমিশনার মো. রফিকুল ইসলাম। এ সময় তিনি সশস্ত্র বাহিনীর সাবেক ১৫০ জন কর্মকর্তার সঙ্গে প্রধানমন্ত্রীর বৈঠক আচরণবিধির লঙ্ঘন নয় বলেও জানান।

শুক্রবার বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী আহমেদ নয়াপল্টনে অভিযোগ করেন, সাবেক সেনা কর্মকর্তার সঙ্গে প্রধানমন্ত্রীর বৈঠক আচরণবিধির লঙ্ঘন। সাংবাদিকরা রফিকুল ইসলামের কাছে এই বিষয়ে জানতে চাইলে নিজের উদাহরণ টেনে তিনি বলেন, আমাদের এখানে যদি কেউ এসে বলে আপনারা যা করছেন, ভালো করছেন। আমার বন্ধু যারা রিটায়ার্ড কর্মকর্তা, যারা কোনো কিছুর সাথে জড়িত না-তারা যদি এসে বলে, দোস্ত যা করছিস, ভালো করছিস। ভবিষ্যতে যেন এরকমই থাকে। এটা আমাকে এক ধরনের মানসিক সমর্থন যোগানো। বাংলাদেশের নাগরিক হিসেবে এটিকে আচরণবিধির লঙ্ঘন হিসেবে মনে করার কোনো কারণ নেই। আর যদি মনে করেন, তাহলে কোন ধারার লঙ্ঘন সেটিও জানাতে হবে।

রফিকুল ইসলাম বলেন, প্রধানমন্ত্রী তো সরকারে আছেন। সংবিধানে তিনি লাভজনক পদে অধিষ্ঠিত হলেও তিনি তো তার বাসভবন থেকে বের হয়ে যেতে পারবেন না। কারো সঙ্গে যদি উনি দেখা করতে চান, তাহলে কোথায় দেখা করবেন? রাস্তার মধ্যে এসে? দলীয় কার্যালয়ে দেখা করতে পারেন সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের জবাবে এই নির্বাচন কমিশনার বলেন, ‘ভাই, বাসভবন ওটা। গুলাইয়েন না কিন্তু। কেউ আমার সঙ্গে দেখা করতে চায়, আমি কি রাস্তায় দাঁড়িয়ে দেখা করব। তারা আসছেন আমার বাসায়, তাহলে বাসাতেই তো দেখা করতে হবে। তারা আসছেন, দেখা করেছেন, সমর্থন দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রীকে। তার নেতৃত্বের প্রতি সমর্থন দিয়েছেন। আমি যতটুকু আচরণ বিধিমালা বুঝি, তাতে মনে হচ্ছে না এটা আচরণ বিধির লঙ্ঘন।’

তাহলে গণভবন ব্যবহার করে প্রচারণা চালানো যাবে কি না, এর উত্তরে তিনি বলেন, প্রচারণা চালালে আচরণবিধি লঙ্ঘন হবে, তখন আমরা ব্যবস্থা নেব। অভিযোগকারীরা বলুক, প্রচারণা চালাচ্ছে। একাধিক মনোনয়ন প্রত্যাশীর মনোনয়নপত্র জমা নেয়া হয়নি বলে অভিযোগ রয়েছে, এ বিষয়ে রফিকুল ইসলাম জানান, সুনির্দিষ্টভাবে কোনো কর্মকর্তার বিরুদ্ধে পক্ষপাতিত্বের অভিযোগ উঠলে ব্যবস্থা নেয়া হবে। রিটার্নিং কর্মকর্তাদের গাফিলতির অভিযোগে যারা মনোনয়নপত্র জমা দিতে পারেননি তারা ইসি ও আদালতে প্রতিকার চাইতে পারেন।

(জাস্ট নিউজ/একে/২১০৮ঘ.)