সাতক্ষীরায় কথিত ‘বন্দুকযুদ্ধে’ আসামি নিহত

সাতক্ষীরায় কথিত ‘বন্দুকযুদ্ধে’ আসামি নিহত

সাতক্ষীরা, ২৯ এপ্রিল (জাস্ট নিউজ) : সাতক্ষীরা আন্তঃজেলা ডাকাত দলের নবাব বাহিনীর প্রধান নবাব আলী পুলিশের সাথে কথিত ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত হয়েছে। এ সময় এস আই ইব্রাহিম খলিলসহ তিন পুলিশ সদস্য আহত হয়েছে বলে পুলিশ জানিয়েছে।

রবিবার ভোর রাত ৪ টার দিকে সাতক্ষীরা সদর উপজেলার আবাদের হাট এলাকার হালিমা খাতুনের আম বাগানে এ বন্দুক যুদ্ধের ঘটনা ঘটে। ঘটনা স্থল থেকে ১টি বিদেশী তৈরি পিস্তল, ১ রাউন্ড গুলি, ৪টি রামদা ও ছুরি উদ্ধার করা হয়েছে বলে দাবি করেছে পুলিশ।

সাতক্ষীরা সদর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মারুফ আহমেদ বলেন, পুলিশের তালিকাভুক্ত সাতক্ষীরা আন্তঃজেলা ডাকাত দলের নবাব বাহিনীর প্রধান ১২ মামার আসামী নবাব আলীকে শনিবার পাটকেলঘাটা থানা পুলিশ গ্রেফতার করে সদর থানায় সোপার্দ করে। রবিবার রাত ৪ টার দিকে তাকে নিয়ে আবাদের হাট এলাকার হালিমা খাতুনের আম বাগানে অস্ত্র উদ্ধারে যায় পুলিশ। এসময় পূর্ব থেকে সেখানে অবস্থান নেওয়া নবাব বাহীর সদস্যরা পুলিশের নিকট থেকে নবাব আলীকে ছাড়িয়ে নিতে গুলি করে। পুলিশ ও পাল্টা গুলি ছুড়ে তাদের প্রতিহত করার চেষ্টা করে। উভয় পক্ষের গোলাগুলির মধ্যে নবাবআলী পালি যাওয়ার সময় গুলিবিদ্ব হয়ে ঘটনাস্থলে নিহত হয়।

এ সময় পুলিশের এস আই ইব্রাহিম খলিল, পুলিশ সদস্য তুহিন ও আশিকুজ্জামান আহত হয়। পরে ঘটনাস্থল থেকে ১টি বিদেশী তৈরি পিস্তল, ১ রাউন্ড গুলি, ৪টি রাম দা ও ছুরি উদ্ধার করে পুলিশ। সন্ত্রাসী নবাবআলী উপজেলার বকচরা গ্রামের মজিদ মোল্যার ছেলে। তার বিরুদ্ধে সাতক্ষীরা সদর থানাসহ বিভিন্ন থানায় হত্যা, চাঁদাবাজী, দস্যুতা, রাহাজানিসহ মোট ১২টি মামলা রয়েছে। পুলিশ নিহত নবাব আলীর মরদেহ উদ্ধার করে সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠিয়েছে।

জাস্ট নিউজ/এমআই/১০৫২ঘ.)