সরকার জনগণকে বন্দি করে রেখেছে: রিজভী

সরকার জনগণকে বন্দি করে রেখেছে: রিজভী

সরকার রাষ্ট্রক্ষমতা ধরে রেখে জনগণকে বন্দি করে রেখেছে বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী।

রোববার রাজধানীর শেরেবাংলা নগরস্থ চন্দ্রিমা উদ্যানে ঢাকা মহানগর দক্ষিণ মহিলা দলের নবনির্বাচিত কমিটির নেতৃবৃন্দকে নিয়ে বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা সাবেক প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমানের কবরে পুষ্পার্ঘ অর্পণ ও জিয়ারত শেষে তিনি এ মন্তব্য করেন।

সরকারের উদ্দেশে রুহুল কবির রিজভী বলেন, নির্বাচন করছেন সেখানে ভোটাররা ভোট দিতে পারছে না। আওয়ামী লীগ নিজেরা নিজেরা নির্বাচন করছে। উপজেলা নির্বাচন হয়ে গেল। এখানে আরও ভোট কম পড়েছে। তাদের লজ্জা নাই। লজ্জাহীন সরকার রাষ্ট্র্রক্ষমতা ধরে রেখে জনগণকে বন্দি করে রেখেছে। উম্মুক্ত কারাগারে জনগণকে বন্দি করে রেখেছে। গণতন্ত্রের পক্ষে যারা কথা বলছে তাদেরকেও তারা বন্দি করে রেখেছে।

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরের বক্তব্যের সমালোচনা করে তিনি বলেন, আপনারা বলেছেন, বাহিরের কেউ থাকুক না বা না থাকুক পাশ্ববর্তী দেশ আপনাদের ক্ষতায় বসিয়েছে। আপনাদের এ দেশের জনগণ লাগে না।

আপনাদের ঘারে আরব্য রজনীর দৈত্য বসে আছে, যাদের নির্দেশে আপনারা চলছেন। আপনারা জনগণের ভোটে নির্বাচিত হলে বাংলাদেশ যে চারদিক থেকে ধ্বসে যাচ্ছে তা হতো না।

রিজভী বলেন, আজকে পত্রিকায় এসেছে প্রয়োজনীয় রিজার্ভ ১৮ মিলিয়ন ডলারের নিচে নেমে এসেছে। মানুষ প্রয়োজনীয় খাবার আমদানি করতে পারছে না। পাশাপাশি যে ঋণ নেয়া হয়েছে তাতে সুদ দিতে হবে এক লক্ষ কোটি ডলার। ঋণের টাকা পরিশোধ করবে না কি জনগণের উন্নয়নে কাজ করবে। জনগণকে তালাক দিয়ে আপনারা রাষ্ট্র ক্ষমতায় বসে আছেন।

এ সময়ে কেন্দ্রীয় মহিলা দলের সভাপতি আফরোজা, ঢাকা মহানগর দক্ষিণের সভাপতি রুমা আক্তার, সাধারণ সম্পাদক শাহিনুর নার্গিস, সিনিয়র সহ সভাপতি সুরাইয়া বেগম, সহ সভাপতি রেহানা ইয়াসমিন ডলি, হাসিনা আলম হাসি, খালেদা আলমসহ নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।